বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০১৮ , ইতিহাস, থিম, গুরুত্ব, করণীয় পদক্ষেপ, বিখ্যাত উক্তি।। World Earth Day 2018

বিশ্ব ধরিত্রী দিবসঃ

আজ বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০১৮ । যে পৃথিবীতে আমাদের জন্ম, যে পৃথিবী আমাদের মায়ের মতো আগলে রেখেছে শতাব্দীর পর শতাব্দী, সেই পৃথিবীর প্রতি আমাদের ভালোবাসা ও সচেতনতা সৃষ্টির উদ্দেশ্যে প্রতি বছর ২২শে এপ্রিল পালিত হয় বিশ্ব ধরিত্রী দিবস বা Earth Day। বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০১৮ সালের থিম হল- “End Plastic Pollution”.

ধরিত্রী দিবসের ইতিহাসঃ

বিংশ শতাব্দীর ষাটের দশকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রর রাজনৈতিক অঙ্গনে বড় ধরনের পরিবর্তন আসা শুরু করেছিলো। সে সময় ভিয়েতনাম যুদ্ধের মতো ঘটনা নাড়া দিয়েছিলো আমেরিকার জনগণকে। দেশটির বিভিন্ন জায়গায় গড়ে উঠেছিলো যুদ্ধবিরোধী আন্দোলন। সাথে অন্যান্য সামাজিক বিষয়েও সচেতনতা তৈরি হচ্ছিলো মানুষের মধ্যে। ফলশ্রুতিতে রাজনীতিতে জনমতের গুরুত্ব ক্রমেই বাড়ছিলো। তবে পরিবেশ বিষয়ে তখনো খুব একটা আলোচনা ছিলো না।

চিত্রঃ বিশ্ব ধরিত্রী দিবসের ইতিহাস (রূপক চিত্র)

১৯৬২ সালে একজন মানুষের লেখা বদলে দেয় পুরো প্রেক্ষাপট। তিনি হলেন র‍্যাচেল কার্সন। তাঁর “Silent Spring” নামের বইয়ে তিনি পরিবেশের উপর কীটনাশকের ক্ষতিকর প্রভাব বিস্তারিতভাবে তুলে ধরেন। তুমুল আলোড়ন তোলে বইটি। জন্ম নেয় আধুনিক পরিবেশ আন্দোলনের। এর কয়েক বছর পর আসে একটি নির্দিষ্ট দিনকে পরিবেশের জন্য রাখার পরিকল্পনা।

ষাটের দশকে ক্যাম্পাসভিত্তিক বিভিন্ন আন্দোলন দ্বারা অনুপ্রাণিত হয়েছিলেন উইসকনসিনের সিনেটর গেলর্ড নেলসন। ১৯৬৯ সালে তিনিই প্রথমবারের মতো ধরিত্রী দিবস উদযাপনের প্রস্তাব দেন। তাঁর প্রাথমিক উদ্দেশ্য ছিলো জাতীয় রাজনৈতিক নেতৃত্বকে দেখানো যে পরিবেশ আন্দোলনের প্রতি জনগণের ব্যাপক ও গভীর সমর্থন রয়েছে। তবে নেলসন কোন সংস্থার মাধ্যমে দিবসটি আয়োজন করাতে চান নি। বরং তাঁর ইচ্ছা ছিলো তৃণমূল পর্যায়ে সাধারণ মানুষের অংশগ্রহণকে উৎসাহিত করা। কল্পনাতীতভাবে এ ইচ্ছা বাস্তবায়িত হয়েছিলো।

চিত্রঃ প্রথম বিশ্ব ধরিত্রী দিবস, ২২শে এপ্রিল ১৯৭০

কয়েকজন শিক্ষার্থীর সহায়তায় ১৯৭০ সালের ২২শে এপ্রিল আয়োজন করা হয় প্রথম ধরিত্রী দিবস। তখন এর নাম ছিল এনভায়রনমেন্টাল টিচ-ইন। প্রায় ২০ মিলিয়ন অর্থাৎ  ২ কোটি ২০ লক্ষ মানুষ দিনটি উদযাপন করেছিলো। তবে এখানেই থেমে যায় নি এ ঘটনা। ধরিত্রী দিবস বড় ধরনের প্রভাব ফেলেছিলো জাতীয় নীতিনির্ধারণী পর্যায়েও।

চিত্রঃ প্রথম বিশ্ব ধরিত্রী দিবসে প্রায় ২০ মিলিয়ন মানুষের যোগদান

প্রথম দিকে শুধু মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে সীমিত থাকলেও পরবর্তীতে ধরিত্রী দিবসের ধারণা ছড়িয়ে পড়ে অন্য দেশেও। ১৯৯০ সালে জাতিসংঘ তাদের বার্ষিক পঞ্জিকায় দিবসটিকে স্থান দেয় এবং সদস্য দেশগুলোকে তা পালনের আহ্বান জানায়। ১৯৯০ সালে আন্তর্জাতিকভাবে ১৪১টি জাতির মাধ্যমে আয়োজন করা হয়েছিল বিশ্ব ধরিত্রী দিবস। এরপর থেকে ১৯২টি দেশে প্রতিবছর ২২শে পালিত হচ্ছে বিশ্ব ধরিত্রী দিবস।

বিশ্ব ধরিত্রী দিবসের থিমঃ

১. বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০১৮ সালের থিম হল- “End Plastic Pollution”.
২. বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০১৭ সালের থিম ছিল – “Environmental and Climate Literacy”.
৩. বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০১৬ সালের থিম ছিল- “Trees for the Earth!”.
৪. বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০১৫ সালে থিম ছিল- “Water Wonderful World” and “Clean Earth – Green Earth”.
৫. বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০১৪ সালের থিম ছিল- “Green Cities”.
৬. বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০১৩ সালের থিম ছিল- “The Face of Climate Change”.
৭. বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০১২ সালের থিম ছিল- “Mobilize the Earth”.
৮. বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০১১ সালের থিম ছিল- “Clear the Air”.
৯. বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০১০ সালের থিম ছিল- “Reduce”.
১০. বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০০৯ সালের থিম ছিল- “How Do You Get Around”.
১১. বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০০৮ সালের থিম ছিল- “Trees Please”.
১২. বিশ্ব ধরিত্রী দিবস ২০০৭ সালের থিম ছিল- “Be kind to the earth – starting from saving resources”

২২শে এপ্রিল কেন ধরিত্রী দিবস হিসেবে পালন করা হয়?

আমাদের পৃথিবী একমাত্র গ্রহ যেখানে জীবনের অস্তিত্ব রয়েছে। পৃথিবীতে জীবন চালিয়ে যাওয়ার জন্য পৃথিবীর প্রাকৃতিক সম্পদের বজায় রাখা অত্যন্ত প্রয়োজনীয়। বিশ্বের মধ্যে মানুষকে বলা হয় ঈশ্বরের সবচেয়ে বুদ্ধিমান প্রাণী। কিন্তু যে গ্রহটি তাকে জীবন দান করেছে তার যত্ন নিতে ভুলে গিয়েছিল মানুষ এবং প্রাকৃতিক সম্পদগুলি অত্যন্ত নির্মমভাবে ব্যবহার করতে শুরু করেছিলো। এই পৃথিবীর গুরুত্ব সম্পর্কে মানবজাতিকে সচেতন করতে ২২শে এপ্রিল ধরিত্রী দিবস হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে।

১. দিন দিন জনসংখ্যা বৃদ্ধির কারনে বসবাসের ও কৃষি জমির জন্য প্রয়োজনে ব্যাপক হারে গাছ কাটা হচ্ছে। যার জন্য বন্য পশুপাখি হারিয়ে যাচ্ছে এবং বাতাসে প্রয়োজনীয় অক্সিজেনের অভাব দেখা দিচ্ছে।

২. পাহাড় কেটে বসতি স্থাপন করায় ভূমি-ধ্বস সহ বেশ কিছু প্রাকৃতিক সমস্যা সৃষ্টি হচ্ছে।

৩. শিল্প কারখানার বর্জ্য খাল, নদী এমন কি সমুদ্রের জলের রাসায়নিক গুনাগুণ নষ্ট করছে। বাস্তুতন্ত্রের ভারসাম্যহীনতায় অনেক জলজ প্রানী ও উদ্ভিদ জীবন বিপন্ন হচ্ছে।

৪. খনি থেকে তেল উত্তোলনের সময় তেল নিঃসরনে পরিবেশের উপরে বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দিচ্ছে। তাছাড়া অনেকসময় তেলবাহী জাহাজের দূঘর্টনায়ও সমুদ্রের জল দূষিত হচ্ছে।

৫. শুধু তাই নয়, বিশ্ব এখন পারমানবিক বর্জ্যের দায় কাধে নিয়ে আছে। বিশ্বের এখন ঝুঁকির মধ্যে আছে বেশ কিছু পারমানবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র। পৃথিবী এখন রেডিয়েশনের ভয়ে প্রকম্পিত।

৬. গ্রীন হাউস এফেক্ট এর জন্য পৃথিবীর তাপমাত্রা তো বৃদ্ধি পাচ্ছেই। মেরু অঞ্চলের বরফগুলো গলে গলে সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা বৃদ্ধি পাচ্ছে এবং মেরু অঞ্চল সহ বিশ্বের বিভিন্ন অংশে এর প্রভাব পড়ছে।

ধরিত্রীকে যত্ন নেওয়ার জন্য আমাদের করণীয় পদক্ষেপঃ

১. সরকারি ও বেসরকারি উদ্যোগের মাধ্যমে সকল মানুষকে পরিবেশ সচেতন করে তুলতে হবে।
২. অরণ্যচ্ছেদন হ্রাস, বৃক্ষরোপণ ও বনসৃজনের দিকে নজর দিতে হবে।
৩. কাছাকাছি পথ অতিক্রম করতে হাঁটা বা সাইকেল ব্যবহার করা।
৪. দূরবর্তী স্থানে যাবার জন্য ব্যক্তিগত গাড়ি ব্যবহার না করে পাবলিক যান বাহন ব্যবহার করা।
৫. জীববৈচিত্র্য সংরক্ষনের দিকে সকল মানবজাতিকে নজর দিতে হবে।
৬. জীবাশ্ম জ্বালানি যথাসম্ভব কম ব্যবহার করতে হবে।
৭. অচিরাচরিত শক্তি ব্যবহারের প্রবণতা বৃদ্ধি করতে হবে।
৮. Recycle পদ্ধতির মাধ্যমে দ্রব্যের পুনর্ব্যবহার করতে হবে।
৯. পরিবেশ রক্ষার জন্য বিভিন্ন গবেষণামূলক কাজে প্রশাসনকে ব্যবস্থা গ্রহন করতে হবে।

বিশ্ব ধরিত্রী দিবসের উপর বিখ্যাত ব্যক্তিদের উক্তিঃ

আমরা ধরিত্রী দিবসের কিছু অনুপ্রেরণীয় ও অর্থপূর্ণ উক্তিগুলি নীচে তালিকাভুক্ত করেছি। সমস্ত তালিকাভুক্ত উক্তি বিশ্বের বিখ্যাত ব্যক্তিত্ব দ্বারা বলা।

চিত্রঃ বিশ্ব ধরিত্রী দিবস উপলক্ষে উক্তি

“Earth Day 1970 was irrefutable evidence that the American people understood the environmental threat and wanted action to resolve it.” – Barry Commoner

“We had some major successes and we did so because the country embraced the spirit of Earth Day and embraced this concept that we have to have forward-looking, visionary environmental policy and energy policy in this country.” – Jay Inslee

“Ahh, Earth Day, the only day of the year where being able to hacky-sack will get you laid.” – Jon Stewart

“If we are ever to halt climate change and conserve land, water and other resources, not to mention reduce animal suffering, we must celebrate Earth Day every day – at every meal.” – Ingrid Newkirk

“On Earth Day, we celebrate all the gifts the world and nature make available to us. We recognize our complete dependence on its bounty. And we acknowledge the need for good stewardship to preserve its fruits for future generations.” – John Hoeven

“Earth Day should encourage us to reflect on what we are doing to make our planet a more sustainable and livable place.” – Scott Peters

“One billion people in 175 countries will mark Earth Day. That puts tea parties in perspective, doesn’t it?” – Greg Dworkin

“In celebration of this Earth Day, I encourage all Members of the House to support legislation aimed at investing in the improvement of water quality in our Nation’s lakes, rivers, streams and estuaries.” – Jerry Costello

“Those who contemplate the beauty of the Earth find reserves of strength that will endure as long as life lasts.” – Rachel Carson

“Trees are Earth’s endless effort to speak to the listening heaven.” – Rabindranath Tagore

“God wanted to make heaven and the earth is that heaven. Nowhere in the universe there is so much love, life, beauty and peace. Enjoy your stay with the fellow beings.” – Amit Ray

“It’s Earth day I wonder if we can plant more trees than people for a change?” – Stanley Victor Paskavich

“I had assumed that the Earth, the spirit of the Earth, noticed exceptions — those who wantonly damage it and those who do not. But the Earth is wise. It has given itself into the keeping of all, and all are therefore accountable.” – Alice Walker

“Well, perhaps the greatest achievement, and we didn’t know it at the time, was we held an Earth Day in 1970, and out of that Earth Day a lot of students got involved in saving the environment, or trying to.” – Pete McCloskey

“Every day is Earth Day, and I vote we start investing in a secure climate future right now.” – Jackie Speier

“If we are ever to halt climate change and conserve land, water and other resources, not to mention reduce animal suffering, we must celebrate Earth Day every day — at every meal.” – Ingrid Newkirk

“The earth is what we all have in common.” – Wendell Berry

“Thank God men cannot fly, and lay waste the sky as well as the earth.” – Henry David Thoreau

“Man must feel the earth to know himself and recognize his values…. God made life simple. It is man who complicates it.” – Charles A. Lindbergh

একনজরে বিশ্ব ধরিত্রী দিবসঃ

১. প্রথম ধরিত্রী দিবস পালন করা হয় ১৯৭০ সালে।
২. গেলরড নেলসন” নামে যুক্তরাষ্ট্রের একজন ব্যক্তি এটি প্রথম শুরু করেন।
৩. তখন এর নাম ছিল এনভায়রনমেন্টাল টিচ-ইন।
৪. প্রথম ধরিত্রী দিবসে প্রায় ২০ মিলিয়ন অর্থাৎ ২ কোটি ২০ লক্ষ মানুষ অংশগ্রহন করেছিল।
৫. ১৯৯০ সালে জাতিসংঘ তাদের বার্ষিক পঞ্জিকায় দিবসটিকে স্থান দেয়।
৬. ২০০৯ সালে UN এর পুনঃনামকরন করেন “INTERNATIONAL MOTHER EARTH DAY”.

ধন্যবাদ জানাই সকলকে মিশন জিওগ্রাফি ইন্ডিয়া-র সাথে থাকার জন্য। আমাদের প্রচেষ্টা ভালো লাগলে বন্ধু-বান্ধবীদের সাথে শেয়ার করে সকলকে আমাদের সাইটে যুক্ত করার আবেদন জানাচ্ছি। এবং পরের পর্ব পড়ার জন্য আগাম আমন্ত্রণ জানিয়ে আজকের মত বিদায় নিলাম।

এখান থেকে শেয়ার করুন
  • 147
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    147
    Shares

Leave a Reply

মন্তব্য করুন

error: মিশন জিওগ্রাফি ইন্ডিয়া কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত