১৪ই ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হচ্ছে আপার প্রাইমারি ভেরিফিকেশন

মিশন জিওগ্রাফি ইন্ডিয়াঃ ১৪ই ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হচ্ছে আপার প্রাইমারির ভেরিফিকেশন। গত শুক্রবার বিজ্ঞপ্তি দিয়ে একথা জানিয়েছিল স্কুল সার্ভিস কমিশন। সেই বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছিল, ভেরিফিকেশনের বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে শনিবার সন্ধ্যায়। গতকাল অর্থাৎ শনিবার একটি বিজ্ঞপ্তি দিয়ে বিষয় অনুযায়ী ভেরিফিকেশনের তারিখ জানাল স্কুল সার্ভিস কমিশন। বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী ১৪, ১৫, ১৮, ১৯ ও ২০ ফেব্রুয়ারি হবে আপার প্রাইমারির ভেরিফিকেশন।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ১৪ই ফেব্রুয়ারি হবে পিওর সায়েন্সের ভেরিফিকেশন। ১৫ই ফেব্রুয়ারি হবে বায়ো সায়েন্স ও পিওর সায়েন্সের ভেরিফিকেশন। ১৮ই ফেব্রুয়ারি আবার বায়ো সায়েন্স ও ইংরাজির ভেরিফিকেশন হবে। বাংলা, ভূগোল, নেপালি, ওড়িয়া ও সাওঁতালি ও উর্দুর ভেরিফিকেশনের তারিখ বলা হয়েছে ১৯ই ফেব্রুয়ারি। আরবি, হিন্দি, ইতিহাস ও সংস্কৃতের ভেরিফিকেশন হবে ২০ই ফেব্রুয়ারি।


Upper Primary Verification

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়েছে, ১১ই ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যা থেকে প্রার্থীরা নিজেদের ১৬ সংখ্যার Application ID ও জন্মতারিখ দিয়ে ইন্টিমেশন ডাউনলোড করতে পারবেন। কমিশন বলেছেন, যাঁরা এই ভেরিফিকেশন প্রক্রিয়াতে অনুপস্থিত থাকবেন বা যাঁরা উপযুক্ত নথিপত্র দেখাতে পারবেন না তাঁদেরকে পরবর্তী ধাপের তালিকা থেকে বাদ দিয়ে দেওয়া হবে।

১৪ই ফেব্রুয়ারি থেকে সফল প্রার্থীদের ডাকা হবে তাঁদের এডুকেশনাল এবং প্রফেশনাল যোগ্যতার নথি যাচাই করার জন্য। যে সকল প্রার্থীদের প্রথম ফেজে ডাকা হয়েছে তাঁদের সংশ্লিষ্ট নথির আসল নিয়ে আসতে হবে ভেরিফিকেশনে।

উল্লেখ্য, গত ৭ই ফেব্রুয়ারি আচার্য্য সদনের বাইরে রাজপথের উপর আরম্ভ হয়েছিল আপার প্রাইমারির আন্দোলন। অর্থাৎ উচ্চ প্রাথমিকে শিক্ষকতা যোগ্যতায় উত্তীর্ণ শিক্ষিত বেকারদের আন্দোলন। আন্দোলনের মূল দাবি ছিল, মার্চের মধ্যে আপার প্রাইমারির শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ করতে হবে। আন্দোলনকারীরা বলেন, “রাজ্যে পালা পরিবর্তনের পর শিক্ষক নিয়োগ একপ্রকার সিকেই উঠে গেছে, যেটুকু হচ্ছে তা আন্দোলনের চাপে নতি স্বীকার করে”

Upper Primary Verification

প্রসঙ্গত সকলেই জানেন, প্রায় পাঁচ বছর আগে আপার এর টেট পরীক্ষা হয় এবং প্রায় দু বছর আগে তার ফলাফল ঘোষণা করা হয় আবার নাটকীয় মোড় নিয়ে আন্দোলনের প্রভাবে প্রায় আট মাস আগে আপার প্রথম পর্বের ভেরিফিকেশন এর নির্বাচিত তালিকা প্রকাশ করে কমিশন। কিন্তু ঐ পর্যন্তই; এর মধ্য দিয়েই নিয়োগ চলতে থাকে একাদশ-দ্বাদশ, নবম-দশম শিক্ষক নিয়োগ যেগুলোর পরীক্ষা হয় আপার টেট এর অনেক পরে। আন্দোলনকারীদের দাবী, এই দুই পর্বের শিক্ষক নিয়োগ পর্বও হচ্ছে আন্দোলনের মধ্য দিয়ে। কমিশনের সদিচ্ছায় নয়। মামলার দায়ে স্থগিত হয়ে রয়েছে প্রধান শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া এবং আপার এর কর্মশিক্ষা ও শারীর শিক্ষার শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া।

Upper Primary Verification

অবশেষে আন্দোলনকারীদের চাপে পড়ে কমিশন ৮ই ফেব্রুয়ারি শুক্রবার নোটিশ দিয়ে বলেন যে, ১৪ই ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হবে আপার প্রাইমারির ভেরিফিকেশন। আবার গতকাল অর্থাৎ শনিবার একটি বিজ্ঞপ্তি দিয়ে বিষয় অনুযায়ী ভেরিফিকেশনের তারিখ জানাল স্কুল সার্ভিস কমিশন। আপার প্রাইমারির মোট ১৩,০৮০টি শূন্যপদের জন্য প্রথম ফেজে ১৭২০২ জন প্রার্থীকে ডাকা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন স্কুল সার্ভিস কমিশনের চেয়ারম্যান সৌমিত্র সরকার।

©মিশন জিওগ্রাফি ইন্ডিয়া।

এখান থেকে শেয়ার করুন
  • 515
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    515
    Shares

মন্তব্য করুন

error: মিশন জিওগ্রাফি ইন্ডিয়া কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত