বর্তমানে আমরা বাস করছি ‘মেঘালয়ান’ নতুন যুগে!

বর্তমানে আমরা বাস করছি ‘মেঘালয়ান’ নতুন যুগে!

বর্তমানে আমরা বাস করছি এক নতুন ভূতাত্ত্বিক যুগ (Age/Stage) ‘মেঘালয়ান’ -এ। এমনটাই জানাচ্ছেন ভূতত্ত্ববিদরা। ইন্টারন্যাশনাল ইউনিয়ন অফ জিওলজিক্যাল সায়েন্সেস (IUGS) সূত্রে খবর, প্রায় ৪২৫০ বছর আগে এই নতুন যুগপর্যায়ের শুরু হয়, যখন থেকে পৃথিবীর সর্বত্র খরাগ্রাস দেখা যায়। গত ১৩ ই জুলাই IUGS এক বিবৃতিতে একথা জানায়।

পৃথিবীর ভূতাত্ত্বিক ইতিহাস অনুযায়ী, বর্তমান হোলোসিন ইপোচ যা ১১,৭০০ বছর আগে শুরু হয়েছিল, তাকে তিনটি নতুন যুগপর্যায়ে বিভক্ত করা হয়েছে — গ্রীনল্যান্ডিয়ান যুগ (১১,৭০০ বছর পূর্ব থেকে ৮৩২৬ বছর পূর্ব) ; নর্থগ্রিপ্পিয়ান যুগ (৮৩২৬ বছর পূর্ব থেকে ৪২৫০ বছর পূর্ব) এবং মেঘালয়ন যুগ (৪২৫০ বছর পূর্ব থেকে বর্তমানকাল)। অর্থাৎ বর্তমানে আমরা ফ্যানেরোজোয়িক মহাযুগের সেনোজোয়িক যুগের কোয়াটারনারী পিরিয়ডের হোলোসিন ইপোচের ‘মেঘালয়ান’ যুগপর্যায়ে (Age/Stage) বাস করছি।

মেঘালয়ান যুগ
মেঘালয়ের মওমলুহ্ গুহা থেকে সংগৃহীত স্ট্যালাগমাইট

মেঘালয়ান যুগপর্যায়টি ৪২৫০ বছর আগে শুরু হয়েছিল যখন পৃথিবীব্যাপী বৃহৎ খরা মিশর, গ্রিস, মেসোপটেমিয়া, প্যালেস্টাইন, সিন্ধু উপত্যকা, ইয়াংসি উপত্যকা অঞ্চলের সভ্যতাগুলির ওপর বিপর্যয় ডেকে এনেছিল। প্রায় ২০০ বছর ধরে এই খরা পরিস্থিতি চলেছিল। উত্তর পূর্ব ভারতের মেঘালয় রাজ্যের মওমলুহ্ গুহার মেঝেতে গঠিত স্ট্যালাগমাইটের অক্সিজেন আইসোটোপের বিভিন্নতা পরীক্ষা করে এই যুগ পর্যায় নির্ধারণ করা হয়। তাই বর্তমানে পৃথিবীর নবীনতম যুগপর্যায়টির নাম রাখা হয়েছে ‘মেঘালয়ান’।

মওমলুহ্ গুহা
মওমলুহ্ গুহা, মেঘালয়

মেঘালয়ের গুহার স্ট্যালাগমাইট নির্ধারণ করল ভূতাত্ত্বিক যুগ। পৃথিবীর ভূতাত্ত্বিক যুগসারণীর ইতিহাসে বর্তমানে আমরা হোলোসিন ইপোচে বাস করি। সেই হোলোসিন ইপোচের সাম্প্রতিকতম যুগপর্যায় (Age/Stage) নির্ধারণে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা গ্রহণ করল মেঘালয়ের একটি গুহা। সম্প্রতি ইন্টারন্যাশনাল ইউনিয়ন অফ জিওলজিক্যাল সায়েন্সেস (IUGS) হোলোসিন ইপোচের তিনটি যুগ পর্যায় বিভাজন প্রকাশ করে। ১১,৭০০ বছর পূর্বে শুরু হওয়া হোলোসিন ইপোচকে তিনটি যুগপর্যায়ে — গ্রীনল্যান্ডিয়ান, নর্থগ্রিপ্পিয়ান ও মেঘালয়ান — বিভক্ত করা হয়েছে। হোলোসিন ইপোচের সর্বশেষ এবং নবীনতম যুগপর্যায়টি হল ‘মেঘালয়ান’ যা আজ থেকে ৪২৫০ বছর পূর্বে শুরু হয়েছিল।

কেন হোলোসিন ইপোচের নবীনতম যুগপর্যায়ের নাম মেঘালয়ান? জানা যাচ্ছে, হোলোসিন ইপোচের অপর দুই যুগপর্যায় — গ্রীনল্যান্ডিয়ান ও নর্থগ্রিপ্পিয়ান -এর তথ্যপ্রমাণ গ্রিনল্যান্ড ও কানাডার হিমবাহ অঞ্চলে সহজেই পাওয়া গেলেও, হোলোসিন ইপোচের নবীনতম যুগপর্যায়টির তথ্যপ্রমাণ সেখানে ছিলনা। আর এখানেই ভারত তথা মেঘালয়ের ভূমিকা উল্লেখযোগ্য হয়ে ওঠে। মেঘালয়ের মওমলুহ্ গুহার স্ট্যালাগমাইট থেকে এই নতুন যুগপর্যায়টি নির্ধারণ করা হয়।

মেঘালয়ান যুগ
অবস্থান: মওমলুহ্ গুহা, মেঘালয়

মওমলুহ্ (Mawmluh) গুহা মেঘালয়ের চেরাপুঞ্জি থেকে পশ্চিমে প্রায় আধ কিলোমিটার দুরে অবস্থিত। খাসি পাহাড়ের চুনাপাথরে তৈরি এই গুহা প্রায় ৭১৯৪ মিটার দীর্ঘ এবং স্ট্যালাকটাইট, স্ট্যালাগমাইট সহযোগে এখানে স্পেলিওথেম গড়ে উঠেছে। ১৮৪৪ সালে সর্বপ্রথম ব্রিটিশ আমলে এই গুহাতে অভিযান করা হয়।

ক্যালিফোর্নিয়া স্টেট বিশ্ববিদ্যালয়ের আর্থ সায়েন্স বিভাগের প্রফেসর আশিষ সিনহা মওমলুহ্ গুহার স্ট্যালাগমাইট নমুনা ল্যাবরেটরিতে ইউরেনিয়াম ডেটিং এর মাধ্যমে পরীক্ষা করেন। ওই স্ট্যালাগমাইটের টুকরোতে বিগত কয়েক হাজার বছরের ভূতাত্ত্বিক ইতিহাসের তথ্য সঞ্চিত রয়েছে। বর্তমানে ওই নমুনাগুলি ‘ইন্টারন্যাশনাল জিওস্ট্যান্ডার্ড’ রূপে চিহ্নিত রয়েছে।

মওমলুহ্ গুহাতে স্পেলিওথেম
মওমলুহ্ গুহাতে স্পেলিওথেম

মেঘালয়ান যুগপর্যায়টি ৪২৫০ বছর আগে শুরু হয়েছিল যখন পৃথিবীব্যাপী ২০০ বছর ধরে খরা পরিস্থিতি চলেছিল। মওমলুহ্ গুহার মেঝেতে গঠিত স্ট্যালাগমাইটের অক্সিজেন আইসোটোপের বিভিন্নতা পরীক্ষা করে এই যুগ পর্যায় নির্ধারণ করা হয়। তাই বর্তমানে পৃথিবীর নবীনতম যুগপর্যায়টির নাম রাখা হয়েছে ‘মেঘালয়ান’।

লেখকঃ অরিজিৎ সিংহ মহাপাত্র (সহযোগী সম্পাদক, মিশন জিওগ্রাফি ইন্ডিয়া)।
তথ্যসূত্রঃ- দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস ; IUGS, Live Science, Wikipedia.

এখান থেকে শেয়ার করুন
  • 515
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    515
    Shares

Leave a Reply

মন্তব্য করুন

error: মিশন জিওগ্রাফি ইন্ডিয়া কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত